Breaking News
Home / অপরাধ / নারায়ণগঞ্জ, আড়াইহাজারে ফাতেমা হত্যায়, পুলিশের সন্দেহে দুই আসামি গ্রেফতা 

নারায়ণগঞ্জ, আড়াইহাজারে ফাতেমা হত্যায়, পুলিশের সন্দেহে দুই আসামি গ্রেফতা 


মোঃ আরিফুল ইসলাম স্টাফ রিপোর্টার

নারায়ণগঞ্জ আড়াইহাজার উপজেলার বিশনন্দী ইউনিয়ণে ঘরের মেঝে থেকে তরুণীর লাশ উদ্ধারের ঘটনায় দুই জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। স্বামী পরিতেক্তা যুবতীর প্রেমে জড়িছে ছেলে, পুলিশের ধারণা সেই জেরেই ফাতেমাকে হত্যা করেছে প্রেমিকের মা-বাবা।

গত ১৭ আগস্ট সোমবার রাতে এমন সন্দেহে উপজেলার বিশনন্দী ইউনিয়নের বিশনন্দী গ্রাম থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে। হত্যার রহস্য উৎঘাটনে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য অভিযুক্ত প্রেমিকের মা-বাবার বিরুদ্ধে মঙ্গলবার আদালতের কাছে করা হয়েছে রিমান্ডের আবেদনও।

আটককৃতরা হলো, বিশনন্দী গ্রামের মৃত সুরুজ মিয়া প্রধানের ছেলে আব্দুল ওহাব (৬২) ও তার স্ত্রী হোস্নেআড়া বেগম( ৪৫)।

গত ১৫ আগস্ট বিকেলে উপজেলার বিশনন্দী গ্রামের নির্মাণাধীন একটি টিনের ঘরের মেঝে খুঁড়ে অজ্ঞাত এক যুবতীর লাশ উদ্ধার করা হয়। পরিচয় না জানায় প্রথমে পুলিশ বাদী হয়ে অজ্ঞাত আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছিল। পরদিন ১৬ আগস্ট অজ্ঞাত ওই যুবতীর পরিচয় শনাক্ত করেন গহরদী গ্রামের বিল্লাল হোসেন নামের এক ব্যক্তি। পুলিশকে জানান, মৃত ওই যুবতী তার মেয়ে স্বামী পরিত্যাক্তা ফাতেমা (২২)। সে মামার বাড়ি থেকে উদ্ধারের প্রায় ৮ দিন পূর্বে নিখোঁজ হয়েছিলেন।

গোপালদী তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ (ওসি) আজাহার জানান, ফাতেমা তার মামা বাড়ি বিশনন্দীতে থাকতো। সেখানে থাকা অবস্থায় গ্রেপ্তারকৃত ওহাবের ছেলে ইউনুসের সাথে প্রেমের সর্ম্পকে জড়িয়ে যায়। আমাদের ধারণা, সে করণেই হত্যাকান্ড ঘটিয়ে থাকতে পারে গ্রেপ্তারকৃতরা। তাই হত্যার রহস্য উৎঘাটনের জন্য ৭ দিনের রিমান্ড চেয়ে গ্রেপ্তারকৃত আসামীদের আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Check Also

পোরশা সীমান্তে ভারতের অভ্যন্তরে এক বাংলাদেশী আটক

নাহিদ পোরশা (নওগাঁ) প্রতিনিধিঃ নওগাঁর পোরশা নিতপুর সীমান্তে ভারতের অভ্যন্তরে মনিরুল ইসলাম (২৫) নামে এক …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *