Breaking News
Home / প্রচ্ছদ / ঠাকুরগাঁও জেলা প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ প্যানেল প্রত্যাশীদের বৃক্ষ-রোপণ কর্মসূচি

ঠাকুরগাঁও জেলা প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ প্যানেল প্রত্যাশীদের বৃক্ষ-রোপণ কর্মসূচি

ঠাকুরগাঁও জেলা প্রতিনিধিঃ

প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ প্যানেল প্রত্যাশী ২০১৮ কেন্দ্রীয় কমিটির নির্দেশে দেশব্যাপী বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি ‘মুজিব বর্ষ’ উপলক্ষে ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলায় “আলোর দিশারী প্রতিবন্ধী অটিস্টিক বিদ্যালয়ে” প্রাইমারী প্যানেল প্রত্যাশী সহকারি শিক্ষকদের বৃক্ষরোপণের অংশ।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবার্ষিকীর কর্মসূচি ‘মুজিব বর্ষ’ উপলক্ষে দেশব্যাপী বৃক্ষরোপণ করছে প্রাথমিক সহকারি শিক্ষক প্যানেল প্রত্যাশীরা। ফলজ, বনজ এবং ঔষধি- এই তিন রকম বৃক্ষরোপণে অংশ নিচ্ছে সংগঠনটির সদস্যরা। ‘মুজিব বর্ষে’র কর্মসূচির অংশ হিসেবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে ‘গাছ লাগাই, জীবন বাঁচাই’। এই স্লোগানকে সামনে রেখে সারাদেশে গাছ লাগানোর নির্দেশ দেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন “প্রাইমারী সহকারি শিক্ষকের প্যানেল প্রত্যাশী ২০১৮খ্রী. কেন্দ্রীয় কমিটি”। তাই প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ ২০১৮-এর প্যানেল প্রত্যাশী কমিটি ৬১ জেলায় বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। কেন্দ্রীয় কমিটির নির্দেশে ঠাকুরগাঁও জেলার প্যানেল প্রত্যাশীদের সাথে নিয়ে বালিয়াডাঙ্গী উপজেলায় এই কাজের উদ্বোধন করেন ঠাকুরগাঁও-২ এর সাংসদ আলহাজ্ব মোঃ দবিরুল ইসলামের সুযোগ‍্য পুত্র ও জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিকের সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম সুজন এবং বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার শিক্ষা অফিসার ও অন‍্যান‍্য নেতৃবৃন্দ। কর্মসূচি পরিচালনা করেন প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ-২০১৮ প‍্যালেন প্রত‍্যাশী ঠাকুরগাঁও জেলার সভাপতি মোঃ ফজলুল করিম ও সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সালাম এবং সাথে আরো উপস্থিত ছিলেন প‍্যানেল প্রত‍্যাশীর অন‍্যান‍্য সদস‍্যবৃন্দ।বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি সম্পর্কে প্যানেল প্রত্যাশী কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি আব্দুল কাদের বলেন, জলবায়ু ও মাটির গুণে প্রাচীন কাল থেকেই বাংলাদেশ সবুজের সমারোহের জন্য সু-প্রসিদ্ধ।
আর এ সমারোহ শুধুমাত্র গাছের জন্য সংখ্যাধিক্যে সীমাবদ্ধ ছিল না, প্রজাতির বৈচিত্রও সমৃদ্ধ ছিল। পরিবেশগত ভারসাম্য রক্ষার্থে একটি দেশের আয়তনের শতকরা ২৫ ভাগ এলাকায় বনভূমি থাকা একান্ত প্রয়োজন রয়েছে বলে বিশেজ্ঞগণ মনে করেন। কিন্তু বাংলাদেশের আয়তনের তুলনায় বনাঞ্চল এলাকার পরিমান মাত্র ৭.৭ ভাগ এবং ভুমি এলাকার তুলনায় ১৪ শতাংশ বনাঞ্চল। তাই আমরা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর আহবানে সাড়া দিয়ে ৬১ জেলাতে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি হাতে নিয়েছি। তারই পরিপ্রেক্ষিতে, ঠাকুরগাঁও জেলার সভাপতি ফজলুল করিম বলেন-“আলহামদুলিল্লাহ। ঐক্যের বন্ধনে আরও এক ধাপ এগিয়ে গেলাম ঠাকুরগাঁও জেলার প্রাথমিক ২০১৮সালের প্যানেল প্রত্যাশীরা।” আজ ঠাকুরগাঁও জেলা প্যানেল প্রত্যাশী কমিটি বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি-২০২০খ্রী. পালন করেছি এবং একই সঙ্গে ভবিষ্যতে যে কোন কর্মসূচী বাস্তবায়ন করতে বদ্ধপরিকর থাকবে ঠাকুরগাঁও জেলার প্যানেল প্রত্যাশী ২০১৮খ্রী. কমিটি।

Check Also

পোরশা সীমান্তে ভারতের অভ্যন্তরে এক বাংলাদেশী আটক

নাহিদ পোরশা (নওগাঁ) প্রতিনিধিঃ নওগাঁর পোরশা নিতপুর সীমান্তে ভারতের অভ্যন্তরে মনিরুল ইসলাম (২৫) নামে এক …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *