Breaking News
Home / খেলাধুলা / চমক দেখাতে চায় বাংলাদেশ

চমক দেখাতে চায় বাংলাদেশ

অনলাইন ডেস্ক
বিশ্বকাপ ও এশিয়ান কাপের যৌথ বাছাইয়ে আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ খেলতে তাজিকিস্তানের রাজধানী দুশানবেতে পৌঁছেছে বাংলাদেশ। সেখানে পৌঁছেই ফিফা ডটকমকে বাংলাদেশ নিয়ে আশার কথা শুনিয়েছেন কোচ

বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দলের কোচ জেমি ডে বরাবরই আশাবাদী মানুষ। বিশ্বকাপ ও এশিয়ান কাপ বাছাইয়ের ম্যাচ খেলতে তাজিকিস্তান রওনা হওয়ার আগে সংবাদ সম্মেলনেও শুনিয়েছিলেন আশার কথা। গতকাল দুশানবেতে পৌঁছে ফিফা ডটকমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারেও বাংলাদেশকে নিয়ে শুনিয়েছেন আশার বাণী। বাংলাদেশের বিপক্ষে খাতাকলমে আফগানিস্তান এগিয়ে থাকলেও অঘটন ঘটাতে চান কোচ।

১০ সেপ্টেম্বর আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ বাছাই ও এশিয়ান কাপ বাছাই অভিযান। ম্যাচটি হবে নিরপেক্ষ ভেন্যু তাজিকিস্তানের রাজধানী দুশানবেতে। সে লক্ষ্যে গতকাল দুশানবেতে পৌঁছেছেন জামাল ভূঁইয়ারা। আফগানদের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে আজ ও পরশু দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। আজ প্রথম ম্যাচের প্রতিপক্ষ তাজিক প্রিমিয়ার লিগের তৃতীয় দল এএফসি কুকটোস।

ঢাকা ছাড়ার আগে জাতীয় দলের কোচ জেমি ডেকে বরাবরই আত্মবিশ্বাসী দেখা গেছে। তাজিকিস্তানে পৌঁছে এই ব্রিটিশ কোচ ফিফা ডটকমকে দিয়েছেন দীর্ঘ সাক্ষাৎকার। সেখানেও আত্মবিশ্বাসী কোচ বলেছেন, তরুণদের নিয়েই বিশ্বকাপের বাছাইপর্বে অঘটন ঘটাতে চান।

গ্রুপে বাংলাদেশের সঙ্গী কাতার, ওমান, ভারত ও আফগানিস্তান। তুলনামূলক সহজ গ্রুপ হলেও মিশনটা কঠিন। তবে সবাইকে চমক দেখাতে চান বাংলাদেশ কোচ, ‘গ্রুপের চার প্রতিপক্ষের সবাই ফিফা র‍্যাঙ্কিংয়ে আমাদের চেয়ে এগিয়ে। আমাদের এ জন্য বাস্তববাদী হতে হবে। এ অভিযানটা কঠিনই হবে। কিন্তু এ অভিজ্ঞতা পরে আমরা কাজে লাগাতে পারব এবং আশা করি, আমরা এবারের বিশ্বকাপ বাছাইয়ে কিছু চমক দেখাতে পারব।’

বাংলাদেশের জন্য আফগানিস্তান বেশ কঠিন প্রতিপক্ষ। তাদের ফিফা র‍্যাঙ্কিং ১৪৯, বাংলাদেশের ১৮২। আফগানিস্তানের দলে ডাক পাওয়া তিনজন খেলোয়াড় বাদে সবাই ইউরোপে খেলে। তা ছাড়া এই আফগানিস্তানের সঙ্গে ১৯৭৯ সালের পর আর কোনো ম্যাচই জিততে পারেনি বাংলাদেশ। এ দলকে তাই মোটেও হালকাভাবে নিচ্ছেন না কোচ, ‘এটা আমাদের জন্য কঠিন চ্যালেঞ্জ। বিশেষ করে আমরা অ্যাওয়ে ম্যাচে খেলব সেখানে। ওরা যথেষ্ট শক্তিশালী। ওদের বেশ কিছু ফুটবলার ইউরোপে খেলে। যদি আমরা কোনো পয়েন্ট পেতে চাই, তাহলে আমাদের সেখানে সেরাটা খেলার দরকার হবে।’

গত অক্টোবরে জেমি ডের অধীনে এশিয়ান গেমসের ফুটবলে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-২৩ দল প্রথমবারের মতো নকআউট পর্বে খেলে। ইন্দোনেশিয়ার জাকার্তায় বাংলাদেশ যুব দল ১-০ গোলে হারায় কাতারকে। তারুণ্যে তাই বরাবরই আস্থা জেমি ডের, ‘আমাদের এই দলে বেশ কিছু প্রতিভাবান তরুণ রয়েছে। পুরোনো ছেলেরা তাদের অভিজ্ঞতা দিয়ে নতুনদের সাহায্য করছে। নতুন ও পুরোনোদের নিয়ে ভারসাম্যপূর্ণ এই দলটা ধীরে ধীরে ভালো একটা দল হয়ে উঠবে।’

Check Also

বিশনন্দী পূর্বপাড়া ভূঁইয়া সেবা সংস্থার উদ্যোগে শেখ রাসেল ফুটবল টুর্নামেন্ট ২০২০ইং ফাইনাল ম্যাচ

মোঃ আরিফুল ইসলাম, স্টাফ রিপোর্টার বিসমিল্লাহির রহমানির রাহিম, আসসালামু আলাইকুম , সম্মানিত সুধী,আমরা অতীব আনন্দের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *