Breaking News
Home / অর্থনীতি / কেনাকাটা নয়, বিনোদনের আসরও বাণিজ্যমেলায়

কেনাকাটা নয়, বিনোদনের আসরও বাণিজ্যমেলায়

ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা শুধু বাণিজ্যিক আয়োজন নয়, অন্যতম বিনোদনের আসর বলেও মনে করেন ক্রেতা-দর্শনার্থীরা। নানা ব্যস্ততার মধ্যে বিশাল পরিধি জুড়ে এ মেলা সব শ্রেণির মানুষ ও ব্যবসায়ীকে এনে দেয় একটি পরিসরে। যা গড়ে তোলে শক্ত বাণিজ্যিক মেলবন্ধন। নগর জীবন, কর্ম ব্যস্ততার অপর এক নাম। অনেকটা পঙ্গপালের মতো ছুটোছুটি। একে অন্যের আগে, নিজ নিজ কাজে, সময়েই পৌঁছুতে হবে গন্তব্যে। এমন ব্যস্ততায় তবুও খুঁজে ফিরে মন, কোথায় আনন্দ সম্ভার?

এমন আকাঙ্ক্ষা অনেকটাই পূরণ করে ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা। এ আয়োজনকে কেন্দ্র করে ক্রেতা-দর্শনার্থীর প্রত্যাশায় থাকে যেমন ভিন্নতা। তেমনি প্রয়োজন-অপ্রয়োজনে, উৎসব মুখর পরিবেশে শুধু নিজে নয়, কেনাকাটার ফাঁকে একটু সময় কাটাতেও আসেন সব বয়সী মানুষ। দর্শনার্থীরা বলেন, বাণিজ্য মেলায় কেনাকাটা, খাওয়া দাওয়া অনেক মজা হয়েছে। পরিবার নিয়ে যারা ঢাকায় থাকেন তারা একটু বিনোদনের জন্যে বাণিজ্য মেলায় আসেন। এখানে সব কিছু পাওয়া যায়। ঘোরাও যায় প্রয়োজনে জিনিস পত্র কেনাও যায়।

ইট পাথরে ঘেরা আবাস থেকে বেরিয়ে খোলামেলা পরিসরে এসে বেশ উচ্ছ্বসিত সোনামনিরাও। চাহিদার কমতি থাকে না তাদেরও। তারা বলেন,  এখানে অনেক খেলনা আছে বিভিন্ন স্টলে যেয়ে আমরা ঘুরে কিনতে পারছি। মাসব্যাপী এ মেলায় চুক্তিভিত্তিক কাজ করেন, এমন খন্ডকালীন বিক্রয় কর্মীরা জানান, বাণিজ্য মেলায় দায়িত্ব পালনের ভিন্ন অভিজ্ঞতার কথা। তারা বলেন, অনেক ক্রেতা আর বিভিন্ন ধরনের মানুষ রয়েছে। বিনোদন হিসেবে এই জায়গাটায় সবাই অনেক কিছু দেখছে। অনেক ক্রেতা অনেক ধরনের চাহিদা তাদের মেইনটেইন করে চলতে হয়।

সতর্ক দৃষ্টি নিয়ে রাজধানীর বিভিন্ন পয়েন্টে দায়িত্ব পালন করেন আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। কিন্তু এখানে আছে একটু স্বস্তি, অন্যরকম এক অনুভূতি, এমন কথা শোনা যায় তাদের কণ্ঠেও। তারা বলেন, কোন প্রকার খারাপ কিছু নাই। শান্তিপূর্ণ ভাবেই সব কিছু হচ্ছে। মানুষ আনন্দের সঙ্গে সব কিছু উপভোগ করছে আমাদের ভালো লাগছে। বৈচিত্র্যময় পণ্যের কেনাকাটা বা একটু ঘুরাঘুরি আর অবসর সময়ে এখানে এসে একটু খুনসুটি। সব মিলিয়ে ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্যমেলা হয়ে উঠে এক উৎসব মুখর পরিবেশ।

Check Also

ঠাকুরগাঁওয়ে ভাষাসৈনিক দবিরুল ইসলাম স্মরনে বৃক্ষরোপন কর্মসূচী

বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি, সাবেক এমএলএ, ভাষাসৈনিক, জেলার কৃতিসন্তান, বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ট সহচর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *